সর্বশেষ:

ব্যয় ধরা হয়েছে ২ হাজার ৩৭৭ কোটি টাকা

সাত জেলার হতদরিদ্র নারী শিশুদের স্বাস্থ্য সুরক্ষায় প্রকল্প ‘যত্ন’

মেডিভয়েস ডেস্ক: দেশের বিভিন্ন জেলায় হতদরিদ্র পরিবারের ৬ লাখ নারী ও শিশুর স্বাস্থ্য সুরক্ষায় ‘ইনকাম সাপোর্ট প্রোগ্রাম ফর দ্য পুয়োরেস্ট (আইএসপিপি)’ বা ‘যত্ন’ নামে প্রকল্প হাতে নিয়েছে সরকার। দেশের উত্তরাঞ্চলের সাত জেলার ৪৪৩ ইউনিয়নে অন্তঃসত্ত্বা নারীর স্বাস্থ্য ও পুষ্টি, শিশুর পুষ্টি এবং মনোদৈহিক বিকাশে মা ও শিশুর কল্যাণে এ প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করা হবে বলে জানিয়েছেন স্থানীয় সরকার সমবায় ও পল্লী উন্নয়নমন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম।

এ প্রকল্পে ব্যয় ধরা হয়েছে ২ হাজার ৩৭৭ কোটি ৮০ লাখ টাকা। যার মধ্যে বিশ্বব্যাংক দুই হাজার ৩৪০ কোটি টাকা আর্থিক সহায়তা দিয়েছে এবং বাকি ৩৭ কোটি ৮০ লাখ টাকা বাংলাদেশ সরকার বহন করছে। প্রকল্পটি চলতি মাসেই ময়মনসিংহ বিভাগের ৪৩ উপজেলায় চালু করার কথা রয়েছে।

এ বিষয়ে মো. তাজুল ইসলাম গণমাধ্যমকে বলেন, প্রকল্পটি বাস্তবায়ন হলেউত্তরাঞ্চলের সাত জেলার হতদরিদ্র নারী ও শিশু অপুষ্টি থেকে মুক্তি পাবেন। বিশেষ করে হতদরিদ্র মানুষের অপুষ্টির সমস্যা বহু বছর ধরেই রয়েছে। সরকার বিষয়টি বিবেচনায় নিয়ে একটি প্রকল্প হাতে নিয়েছে। প্রকল্পে বিশ্ব ব্যাংকের অর্থ সহযোগিতাই বেশি রয়েছে। সরকারের পক্ষ থেকে অল্প টাকা প্রকল্পে দেয়া হয়েছে। প্রকল্পটি সফল হলে সারাদেশেই এই প্রকল্প বাস্তবায়ন করা হবে।

মন্ত্রণালয় সূত্র জানা গেছে, স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের স্থানীয় সরকার বিভাগের অধীনে প্রকল্পটি আগেই শুরু হয়েছে। শেষ হওয়ার কথা রয়েছে ২০২০ সালের জুনে। টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা (এসডিজি) অর্জনে রংপুর বিভাগের গাইবান্ধা জেলার সাতটি উপজেলার ৮২ ইউনিয়ন, কুড়িগ্রাম জেলার নয়টি উপজেলার ৭২ ইউনিয়ন, লালমনিরহাটের একটি উপজেলার ১২ ইউনিয়ন এবং নীলফামারী উপজেলার ১১ ইউনিয়নসহ মোট ১৮ উপজেলা এই প্রকল্প বাস্তবায়িত হচ্ছে। নতুন করে ময়মনসিংহ বিভাগের ময়মনসিংহের ১৩ উপজেলার ১৪৬ ইউনিয়ন, জামালপুরের সাতটি উপজেলার ৬৮ ইউনিয়ন এবং শেরপুর জেলার পাঁচটি উপজেলার ৫২ ইউনিয়ন এই প্রকল্প কার্যক্রম এ মাসেই শুরু হবে।

প্রকল্প সূত্র জানিয়েছে, অতিদরিদ্র পরিবারের অন্তঃসত্ত্বা নারী এবং ৫ বছরের কম বয়সী প্রথম ও দ্বিতীয় শিশু ও তাদের মা যারা চারবার স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য প্রতিবার ২শ’ টাকা করে মোট ৮শ’ টাকা, জন্মের পর দু’বছর পর্যন্ত ওজন ও উচ্চতা পরিমাপের জন্য প্রতিমাসে ৫শ’ টাকা এবং দু’বছর থেকে ৫ বছর পর্যন্ত প্রতি তিন মাস অন্তর শিশুর ওজন ও উচ্চতা মাপের জন্য এক হাজার টাকা করে দেয়া হবে।


সংবাদটি শেয়ার করুন:































জনপ্রিয় বিষয় সমূহ:

প্রধান উপদেষ্টা: অধ্যাপক ডা. মো. তাহির, সাবেক ভাইস চ্যান্সেলর, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় (বিএসএমএমইউ), ঢাকা
বার্তা কক্ষ: ০১৮৬৭৮৪৪৪৫৩  ই-মেইল: [email protected]
মোবাইল: ০১৮৬৭৮৪৪৪৫১